Press "Enter" to skip to content

শ্রমিকদের ধর্মঘট প্রত্যাহারের পর সচল মংলা বন্দর

নৌ-যান শ্রমিকদের ধর্মঘট ৫ দিন পর প্রত্যাহার করে কাজে যোগ দেয়ায় আজ রবিবার ভোর থেকেই মংলা বন্দরে পণ্য খালাস ও পরিবহনের কাজ শুরু হয়েছে। একই সাথে বাহি:নোঙ্গরে অবস্থানরত বিদেশি ১১টি মাদার ভেসেল থেকে লাইটারেজ জাহাজে পণ্য খালাসের কাজও চলছে। এতে স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে আসতে শুরু করেছে মংলা বন্দরের সাথে সারা দেশের অভ্যন্তরীণ নৌ যোগাযোগ ব্যবস্থা।

চলমান ধর্মঘট নিয়ে শনিবার রাতে ঢাকার দৈনিক বাংলার মোড়ে শ্রম ভবনে বৈঠকে বসে শ্রমমন্ত্রী মুজিবুল হক চুন্নু, বাংলাদেশ নৌযান শ্রমিক ফেডারেশন সভাপতি মো. শাহআলাম, সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী আশিকুল আলম ও নৌ শ্রমিক সংগ্রাম পরিষদের আহবায় ওয়েজুল ইসলাম বুলবুলসহ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। বৈঠকে বেতন-ভাতা বৃদ্ধি করার সিদ্ধান্ত হওয়ায় নৌযান শ্রমিকেরা তাদের কর্মবিরতি প্রত্যাহার করে নেয়।

বৈঠকে নৌযান শ্রমিকেরা তাদের বেতন সর্বনিম্ন ১০ হাজার টাকা দাবি করলে মালিকপক্ষ ৯ হাজার ৭৫০ টাকা দিতে সম্মতি জানায়। বাকি দাবিসমূহ পর্যায়ক্রমে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে আলোচনা সাপেক্ষে বাস্তবায়ন করা হবে বলেও সিদ্ধান্ত হয় বৈঠকে।

বেতন-ভাতা বৃদ্ধি, কর্মস্থলে দুর্ঘটনায় নিহত শ্রমিকদের ক্ষতিরপূরণ পুননির্ধারণ, নদীর নাব্যতা রক্ষা ও নৌপথে সন্ত্রাসী-ডাকাতি বন্ধের দাবিতে গত ২২ আগস্ট রাত ১২টা ১মিনিট থেকে নৌযান শ্রমিকেরা মংলা বন্দরসহ সারাদেশে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি পালন শুরু করে। সূত্র: বাংলাদেশ প্রতিদিন

Share Button
More from চট্টগ্রামMore posts in চট্টগ্রাম »

Comments are closed.